1. eliusmorol@gmail.com : দিঘলিয়া ওয়েব ব্লগ : দিঘলিয়া ওয়েব ব্লগ
  2. rahadbd300@gmail.com : rahad :
বৃহস্পতিবার, ২৫ জুলাই ২০২৪, ০৩:৪৯ পূর্বাহ্ন

।।জঙ্গি কর্মকাণ্ডের সাথে জড়িত থাকার দায়ে খুবির দুই শিক্ষার্থী ১০ দিনের রিমান্ডে।।

মো: ইলিয়াস হোসেন
  • সর্বশেষ আপডেট: শনিবার, ২৫ জানুয়ারী, ২০২০
  • ৪৮২ বার সংবাদ টি দেখা হয়েছে
✪খুলনা বিশ্ববিদ্যালয়ের (খুবি) গ্রেফতার দুই শিক্ষার্থী ✪

।।জঙ্গি কর্মকান্ডের সাথে জড়িত থাকার দায়ে খুবির দুই শিক্ষার্থী ১০ দিনের রিমান্ডে।।
।।দিঘলিয়া ওয়েব ব্লগ অনলাইন ডেস্ক রিপোর্ট।।

জঙ্গি কর্মকাণ্ডে জড়িত থাকার দায়ে খুলনা বিশ্ববিদ্যালয়ের (খুবি) দুই শিক্ষার্থীকে গ্রেফতার করেছে পুলিশ। ওই দুই শিক্ষার্থীকে জিজ্ঞাসাবাদের জন্য ১০ দিনের রিমান্ড মঞ্জুর করেছে আদালত। শনিবার দুপুরে তাদের খুলনা মুখ্য মহানগর হাকিম আদালতে হাজির করে ১৫ দিনের রিমান্ডের আবেদন জানায় পুলিশ। পরে জিজ্ঞাসাবাদের জন্য ১০দিনের রিমান্ড মঞ্জুর করে আদালত।

এর আগে শনিবার ভোরে নগরীর গল্লামারী এলাকার একটি বাড়িতে খুলনা মেট্রোপলিটন পুলিশের (কেএমপি) একটি বিশেষ টিম দীর্ঘ তিন ঘণ্টার বেশি সময় অভিযান চালিয়ে তাদের আটক করে। তারা হলেন খুলনা বিশ্ববিদ্যালয়ের (খুবি) হিউম্যান রিসোর্স ম্যানেজমেন্ট (এইচ আর এম) ডিসিপ্লিনের চতুর্থ বর্ষের ছাত্র নূর মোহাম্মাদ অনিক (২৪) ও পরিসংখ্যান ডিসিপ্লিনের চতুর্থ বর্ষের ছাত্র মোঃ মোজাহিদুল ইসলাম রাফি (২৩)। গ্রেফতার অনিক মানিকগঞ্জ জেলার ঘিওর উপজেলার মোড়াবাড়ি গ্রামের আব্দুর রহমানের ছেলে ও রাফি বগুড়া জেলার শিবগঞ্জ উপজেলার ঘাগুর দোয়ার গ্রামের মোঃ রেজাউল করিমের ছেলে।

পুলিশ জানায়, গোপন সংবাদের ভিত্তিতে শুক্রবার দিবাগত রাত আড়াইটা থেকে গতকাল শনিবার ভোর সাড়ে ৫টা পর্যন্ত খুলনা মেট্রোপলিটন পুলিশের (কেএমপি) একটি বিশেষ টিম নগরীর গল্লামারী খোরশেদ নগর এলাকার হাসনাহেনা নামের চতুর্থতলা বিল্ডিংয়ের নিচতলায় অভিযান চালিয়ে নূর মোহাম্মাদ অনিক ও মোঃ মোজাহিদুল ইসলাম রাফিকে গ্রেফতার করে। এ সময় তাদের অবস্থান স্থল থেকে ২টি কালো রঙের রিমোট কন্ট্রোল, একটি ল্যাপটপ, ১৪৪ বক্স দেশলাই, ব্যাটারী ও বৈদ্যুতিক তারসহ বিপুল পরিমাণ বোমা তৈরির সরঞ্জাম উদ্ধার করা হয়। অনিক খুবির বঙ্গবন্ধু হলের ৩১৮ নম্বর কক্ষের আবাসিক ছাত্র ও রাফি খান বাহাদুর আহছানউল্লাহ হলের ২০৩ নম্বর কক্ষের আবাসিক ছাত্র।

পুলিশ জানায়, অনিক বিবাহিত। তিনি ওই বাসাটি ভাড়া নিয়েছিলেন। তার স্ত্রী সোমাইয়া চৌধুরী যখন বাসায় থাকতেন না সেই সময় অনিক ও তার বন্ধু রাফি বাসাটিতে অবস্থান করতেন।

খুলনা মেট্রোপলিটন পুলিশের (কেএমপি) কমিশনার খন্দকার লুৎফুল কবির বলেন, গ্রেফতারকৃতরা প্রাথমিক জিজ্ঞাসাবাদে গত বছরের সেপ্টেম্বরে নগরীর খানজাহান আলী থানার কৃষকলীগ অফিসে বোমা বিস্ফোরণ ও ডিসেম্বরে আড়ংঘাটা থানার গাড়ি গ্যারেজে বোমা বিস্ফোরণের সঙ্গে সরাসরি জড়িত থাকার কথা স্বীকার করেছে।

তিনি বলেন, জিজ্ঞাসাবাদে তারা আরো জানিয়েছে, স্ব প্রণোদিত হয়ে তারা জঙ্গি তৎপরতায় উদ্বুদ্ধ হয়েছে। বোমা তৈরির কলাকৌশলও তারা নিজেরা শিখেছে। জঙ্গি সংগঠনের দৃষ্টি আকর্ষণ করার জন্য তারা এই কাজে জড়িয়েছেন।

নগরীর সোনাডাঙ্গা থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (ওসি) মোমতাজুল ইসলাম জানান, গ্রেফতার নব্য জেএমবির সদস্য নূর মোহাম্মাদ অনিক ও মোঃ মোজাহিদুল ইসলাম রাফির বিরুদ্ধে নগরীর সোনাডাঙ্গা থানায় মামলা দায়ের করা হয়েছে। শনিবার দুপুরে আদালতে হাজির করে ১৫ দিনের রিমান্ডের আবেদন জানালে জিজ্ঞাসাবাদের জন্য ১০দিনের রিমান্ড মঞ্জুর করে।

খুলনা বিশ্ববিদ্যালয়ের ছাত্রবিষয়ক পরিচালক অধ্যাপক শরীফ হাসান লিমন বলেন, জানুয়ারি মাসের প্রথম থেকেই ওই দুই ছাত্র নিখোঁজ ছিলেন। আমরা পুলিশের প্রেস ব্রিফিংয়ের মাধ্যমে তাদের গ্রেফতারের খবর ও জঙ্গি তৎপরতায় জড়িত থাকার কথা জানতে পেরেছি। তাদের বিরুদ্ধে বিশ্ববিদ্যালয়ের শৃঙ্খলা বোর্ডে আইনগত ব্যবস্থা গ্রহণ করা হবে।

স্যোসিয়াল মিডিয়াতে শেয়ার করুন:

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

আরো খবর...